English Version
আপডেট : ২৪ অক্টোবর, ২০১৭ ১৯:৪৫

পরীক্ষাকেন্দ্রে মোবাইল নিষিদ্ধ

অনলাইন ডেস্ক
পরীক্ষাকেন্দ্রে মোবাইল নিষিদ্ধ

এখন থেকে দেশের সব পাবলিক পরীক্ষায় মোবাইল ফোন ব্যবহার নিষিদ্ধ করা হয়েছে। একইভাবে পরীক্ষা শুরুর ৩০ মিনিট আগে পরীক্ষার্থীদের পরীক্ষা কেন্দ্রে ঢোকাও বাধ্যতামূলক করেছে সরকার। পরীক্ষার্থী, শিক্ষকসহ সবার ক্ষেত্রেই এ নিষেধাজ্ঞা থাকবে। আজ মঙ্গলবার শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে এক সভায় এমন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। প্রশ্নফাঁস ঠেকাতেই মোবাইল ফোন নিষিদ্ধ করা হয়েছে বলে জানান শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ। নকলমুক্ত সুষ্ঠু পরিবেশে পরীক্ষা অনুষ্ঠানের লক্ষ্যে গঠিত জাতীয় মনিটরিং ও আইনশৃঙ্খলা সংক্রান্ত কমিটির বৈঠকটিতে সভাপতিত্ব করেন তিনি। 
সভায় মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের সচিব মো. সোহরাব হোসাইন বলেন, পরীক্ষা সংশ্লিষ্ট কেউ স্মার্ট ফোন ব্যবহার করতে পারবেন না। পরীক্ষায় শুধু কেন্দ্র সচিব ক্যামেরাবিহীন সাধারণ ফোন ব্যবহার করতে পারবেন। তিনি জানান, পরীক্ষা শুরুর কমপক্ষে আধঘণ্টা আগে পরীক্ষার্থীদের কেন্দ্রে ঢুকতে হবে। পরে এলে তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে। কেন্দ্রে শতভাগ পরীক্ষার্থী প্রবেশ নিশ্চিত হলে তবেই প্রশ্নপত্র বিতরণের সিদ্ধান্ত হয়েছে। 
এবার থেকে জেএসসির পরীক্ষার্থীদের শারীরিক শিক্ষা ও স্বাস্থ্য, কর্ম ও জীবনমুখী শিক্ষা এবং চারু ও কারুকলা বিষয়ের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে না। তবে এই বিষয়গুলোর ওপর শিক্ষার্থীদের ধারাবাহিক মূল্যায়ন করে স্ব স্ব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান শিক্ষার্থীদের নম্বর পাঠাবে সংশ্লিষ্ট কেন্দ্রে। এরপর সংশ্লিষ্ট কেন্দ্র পরীক্ষা চলাকালীন বোর্ডের ওয়েবসাইটে অনলাইনের মাধ্যমে ধারাবাহিক মূল্যায়নের প্রাপ্ত নম্বর এন্ট্রি করে পাঠাবে। তবে অনিয়মিত পরীক্ষার্থীদের এই তিন বিষয়ে পরীক্ষা দিতে হবে।
নিয়মিত পরীক্ষার্থীদের ক্ষেত্রে বহু নির্বাচনি (এমসিকিউ) অংশে ৩০ নম্বর এবং সৃজনশীল অংশে ৭০ নম্বরের পরীক্ষা হবে। তবে অনিয়মিত পরীক্ষার্থীদের ক্ষেত্রে বহুনির্বাচনি (এমসিকিউ) অংশে ৪০ নম্বর এবং সৃজনশীল অংশে ৬০ নম্বরের পরীক্ষা হবে। এদিকে আগামী ১ নভেম্বর শুরু হবে জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট (জেএসসি) এবং জুনিয়র দাখিল সার্টিফিকেট (জেডিসি) পরীক্ষা। ১৮ নভেম্বর পর্যন্ত চলবে এই কার্যক্রম। সকাল ১০টা থেকে এই পরীক্ষা শুরু হবে।